ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করা প্রয়োজন

কেন এই মুহূর্তে একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করা প্রয়োজন

Advertisement

কেন আমাদের এই মুহূর্তে একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করা প্রয়োজন? কেন আমাদের ইউটিউব থেকে ইনকাম করার চেষ্টা করা প্রয়োজন? আমি অনেকগুলো মোবাইল কল পেয়ে থাকি এবং অনেকের কমেন্ট পেয়ে থাকি। কিভাবে অনলাইন থেকে ইনকাম করা যায় কোন রকম ইনভেস্ট না করে? 90% ইনভেস্ট না করে ইনকাম করতে চাই অনলাইন থেকে। সবাই মনে করে মূলত অনলাইনে শুধুমাত্র এসেই কোন রকম একটা স্মার্টফোন বা কোন কিছু দিয়ে যদি কোন জায়গায় লেগে যায়, তাহলে এখান থেকে হাজার হাজার ডলার আর্ন করা যায়। তাদের জন্য আজকের এই আর্টিকেল। হাজার হাজার ডলার আয় করতে পারবেন যদি আপনি লেগে থাকতে পারেন, আপনি পরিশ্রম করতে পারেন, এবং আপনার ক্রিয়েটিভিটি কে কাজে লাগাতে পারেন।

কেন এই মুহূর্তে একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করা প্রয়োজন
কেন এই মুহূর্তে একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করা প্রয়োজন

অনেকেই যে ফ্রি পদ্ধতিগুলো খোঁজেন, তাদের জন্য আজকের পদ্ধতি 100% ফ্রি! কিভাবে অনলাইন থেকে প্যাসিভ ইনকাম করবেন এবং প্রফেশনালি। মূলত অনলাইনে যতগুলো কাজ রয়েছে সবাই যদিও মনে করেন। মূলত ইনভেস্ট ছাড়া কোনো রকম কাজ করা যায় না। আপনি যদি ফ্রিল্যান্সিং করেন সেখানেও আপনাকে ইনভেস্ট করতে হয়, বিভিন্ন রকম SEO রিলেটেড টুলস কিনতে হয়। যদি আপনি ওয়ার্ডপ্রেস নিয়ে কাজ করেন বিভিন্ন রকম স্যাম্পল দেওয়ার জন্য আপনাকে নিজের একটি হোস্টিং ডোমেইন কিনে রাখতে হয়। এ ধরনের অনেকগুলো কিন্তু ইনভেস্টেবল বিষয় রয়েছে। এবং আপনি যদি ব্লগার হিসেবে কাজ করেন। ব্লগ করেন, ব্লগের জন্য আপনাকে পেমেন্ট করতে হবে। আপনি যদি ই-কমার্স নিয়ে কাজ করতে চান, ই-কমার্স ওয়েবসাইট করতে আপনাকে ইনভেস্ট করতে হবে। সব জায়গায় কিন্তু ইনভেস্টমেন্ট রয়েছে। কিন্তু আজকের যে পদ্ধতিটি আমি আপনাদেরকে বলবো, ইউটিউব কেন প্রয়োজন।

ইউটিউবে কেন আপনি বিনিয়োগ না করে সফল হতে পারবেন?

সে বিষয়টি আমি আপনাদের সাথে শেয়ার করব। ইউটিউব হচ্ছে এমন একটা প্লাটফর্ম। যেখানে শুধুমাত্র আপনার ক্রিয়েটিভিটি কে কাজে লাগিয়ে, আপনি কোন রকম ইনভেস্ট না করে ইনকাম করতে পারেন। ইনকাম করার জন্য আপনাকে শুধুমাত্র আপনার একটা স্মার্ট ফোন ব্যবহার করতে হবে। যদি আপনার একটা স্মার্টফোন থাকে ভালো, তাহলে আপনি এই ইউটিউব শুরু করতে পারবেন এবং এটার জন্য আপনাকে অনেক বড় কম্পিউটার কিনতে হবে না, ল্যাপটপ কিনতে হবে না, এবং একেবারে অনেক দামি মোবাইল কিনতে হবে না।

মোবাইলের ক্যামেরা একটু কোয়ালিটি হলে হবে। মোবাইল ক্যামেরা দিয়ে যদি একটু ভিডিও ভালো হয়, তাহলে আপনি বিভিন্ন ব্লগ রিলেটেড ভিডিও বানাতে পারেন, ট্রাভেল ব্লগ, নিউজ মিডিয়া রিলেটেড ভিডিও বানাতে পারেন। যেটার জন্য আপনাকে কোন পেমেন্ট করতে হবে না। আপনি যদি ইউটিউবে সার্চ করেন।

কিভাবে একটা মোবাইল দিয়ে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করতে হয়?

তাহলে হাজার হাজার ভিডিও পেয়ে যাবেন। যে কোন একটা ভিডিও দেখে সে পদ্ধতি গুলো অনুসরণ করে আপনি মোবাইল দিয়ে একটা ইউটিউব চ্যানেল করে ফেলুন। আপনার যদি ইতিমধ্যে একটা জিমেইল অ্যাকাউন্ট থাকে, তাহলে কিন্তু আপনার একটা ইউটিউব চ্যানেল রয়েছে। যেটা আপনি নিজেও জানেন না। কিন্তু এই চ্যানেলটাকে আপনি ভেরিফাই করে আজ থেকে ইউটিউবে কাজ শুরু করতে পারেন এবং এখান থেকে আপনি আয় করতে পারেন। আমি যে ইউটিউব ভিডিও রেকর্ড করছি এটা একটা মোবাইল দিয়ে। মোবাইল দিয়ে কিভাবে ইউটিউব শুরু করা যায় সে বিষয়টির প্রমাণ হচ্ছে আমি নিজেই। আমি মোবাইল দিয়ে ইউটিউব ভিডিও রেকর্ড করছি এবং এডিট করার পরে ইউটিউবে এই ভিডিওটি দেখতেছেন। আপনাদের কেও একটা মোবাইল ব্যবহার করে ইউটিউব চ্যানেল তৈরি করতে হবে এবং ইউটিউব চ্যানেলের মাধ্যমে আপনাদেরকে ভিডিও আপলোড করে, এখান থেকে আয় করতে হবে।

এই মুহূর্ত থেকে কেন আপনার একটা চ্যানেল স্টার্ট করার প্রয়োজন?

কারণটা হচ্ছে এই মুহূর্তে যেহেতু সবাই অধিকাংশ ইনস্টিটিউট অন্যান্য যে কর্মসংস্থান এগুলো বন্ধ থাকার কারণে অনেক বেশি ভিডিওগুলোর চাহিদা বেড়ে গেছে। এই সুযোগকে কাজে লাগিয়ে আপনি ভিডিও কনটেন্ট তৈরি করে আপনার চ্যানেলে আপলোড করা শুরু করতে পারেন, তাহলে আপনার যে ইউটিউব এর পলিসি রয়েছে আয় করার জন্য 4000 ঘন্টা ওয়াচ টাইম 1000 সাবস্ক্রাইবার এগুলো আপনি খুব সহজেই সংগ্রহ করতে পারবেন। যেহেতু এখন ইউটিউব এর চাহিদা অনেক বেশি বেড়ে গেছে। সুতরাং আপনার কন্টেন্ট যদি একটু ভালো করতে পারেন, তাহলে তো কোন কথাই নাই। আপনি খুব সহজে ইউটিউবের মনিটাইজেশন পেয়ে যাবেন এবং সেখান থেকে আপনি খুব সহজে ইনকাম করতে পারবেন।

পড়ার সময় না থাকে তাহলে সরাসরি এই ভিডিওটি দেখে ফেলুন এই ভিডিওতে সকল তথ্য দেওয়া আছে…

সুতরাং ভিউয়ার আপনি যদি একটা ইউটিউব চ্যানেল স্টার্ট করতে আগ্রহী হয়ে থাকেন, তাহলে আপনার জন্য অবশ্যই অবশ্যই শুভকামনা রইল এবং আজ থেকে আপনাকে আমি পরামর্শ দিলাম আপনার মোবাইল যদি থাকে একটা ভালো। আজ থেকে আপনি ইউটিউব শুরু করেন। আশা করি আপনি খুব ভালো করতে পারবেন। আপনার জন্য অবশ্যই অবশ্যই  শুভকামনা রইল। যারা এই ভিডিওটি দেখে এবং এ আর্টিকেলটি পড়ে ইউটিউব চ্যানেল শুরু করতেছেন এই ভিডিওটি দেখার পরে বা আর্টিকেলটি পড়ার পরে, আমাকে একটা কমেন্ট করে জানান।

আমি প্রয়োজনে আপনাদের জন্য আরো কিছু ইউটিউবে ভিডিও নিয়ে আসব বা আর কিছু গাইডলাইন বিষয়ে আর্টিকেল লিখব। যেগুলো আপনাদেরকে অনেক বেশী সাহায্য করবে। সুতরাং আজকের আর্টিকেল এপর্যন্ত এখনো Tawhid7M ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করেননি, সাবস্ক্রাইব করে ফেলুন এবং পাশে থাকা নোটিফিকেশন বাটনে ক্লিক করুন। যেন আমি নতুন নতুন ভিডিও আপলোড করলে আপনারা নোটিফিকেশন পেয়ে যান। সবাই ভাল থাকবেন। আল্লাহাফেজ!

Advertisement

Advertisement
Md thouhidul islam tawhid - seo and digital marketing

একজন ইলেক্ট্রিক্যাল বিষয়ে ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার হিসেবে সবসময় টেকনোলজি কে অগ্রাধিকার দিতে ভালোবাসি। প্রযুক্তির সাথে এগিয়ে যেতে ও নিজেকে সবসময় আপডেট রাখার জন্য নিয়মিত প্রযুক্তিগত জ্ঞান নিজে অর্জনের পাশাপাশি অন্যদের সাথে শেয়ার করাতে ভালো লাগে। সময় পেলে প্রযুক্তি, ব্যবসা, মার্কেটিং বিষয়ে লিখতে চেষ্টা করি। পেশা যাই হোক, তা হতে লাভবান হতে চাইলে ব্যবসা ও মার্কেটিং জ্ঞান আবশ্যক।

নিচের বাক্সে আপনার মতামত লিখে জানান।